বাঙালি সাজের সঙ্গে মানানসই চোখের সাজ

চোখ যাতে কথা বলতে পারে, তার জন্য মহিলারা এখন বেশ কয়েকটি চোখের রূপটান ব্যবহার করে নিজেকে সাজাতে চাইছেন।

মাস্কের যুগে রূপটান তো ঢাকাই পরে যাচ্ছে প্রায়। তাই এখন যার কদর বাড়ছে, তা হল চোখের রূপটান। বাঙালিদের মধ্যেও জনপ্রিয়তা বাড়ছে চোখের রূপটান নিয়ে নানা পরীক্ষানিরীক্ষার।

চোখ যাতে কথা বলতে পারে, তার জন্য মহিলারা এখন বেশ কয়েকটি চোখের রূপটান ব্যবহার করে নিজেকে সাজাতে চাইছেন। চোখের রূপটানগুলোর মধ্যে বেশ কয়েকটি এখন চলতি। তার মধ্যে ‘স্মোকি আইস’, ‘সানসেট আইস’, ভারী চোখের পাতা, সাদা আইলাইনার খুব বেশিই চলছে। কী কী ধরনের চোখের রূপটান কোন কোন পোশাকের সঙ্গে মানানসই তা জেনে নিন।


যে কোনো কালো পোশাকের সঙ্গে ‘স্মোকি আইস’ রূপটান আপনি চেষ্টা করতে পারেন। কী ভাবে এই রূপটান প্রয়োগ করবেন ভাবছেন? জেনে নিন এখনি। প্রথমে আপনি আপনার চোখের উপরের ভাঁজ ঢাকার জন্যে হালকা খয়েরি রঙের আইশ্যাডো লাগান। তার পর একটি সরু ব্রাশ দিয়ে গাঢ় খয়েরি রং ভরে দিন আপনার চোখের কোনাগুলিতে। এর পর চোখের উপরে মাঝারি খয়েরি রং ধীরে ধীরে ভরে দিন। এর সঙ্গে চোখের নীচের দিকটা মাঝারি খয়েরি রং দিয়ে হালকা ভাবে ভরে দিন। এ ভাবে আপনি ‘স্মোকি আইস’ আঁকতে পারবেন।

‘সানসেট আইস’ আঁকতে আপনাকে প্রথমে চোখের উপর দিকটা প্রাইমার দিয়ে ভরতে হবে হালকা ভাবে। এর পর ফাউন্ডেশন অথবা কনসেলর দিয়ে ভরে দিন চোখের উপর দিকটিকে। তার পর সবচেয়ে হালকা রঙের আইশ্যাডো লাগান। এর পরে আপনি গাঢ় রং ব্যবহার করতে পারেন। এর পর আপনাকে কমলা রং দিয়ে ভরতে হবে চোখের উপর দিকটা। এবং কোনার দিকটায় দিতে হবে গাঢ় গোলাপি রং। চোখের নীচেও বেগনি রং দিয়ে ভরতে হবে একটি সরু ব্রাশ ব্যবহার করে। এর ঠিক পরেই আইলাইনার এবং মাসকারা দিয়ে চোখটি সুন্দর করে এঁকে ফেলুন। আপনার ‘সানসেট আইস’ তৈরি।


এ ছাড়াও আলাদা কিনতে পাওয়া যায় চোখের পাতা। আপনি সাধারণ ভাবে চোখ এঁকে লাগিয়ে দিন ওই চোখের পাতা। আপানাকে আলাদা করে মাসকারা ব্যবহার করতে হবে না এর ফলে। সাদা আইলাইনার দিয়ে চোখের পাতার ঠিক উপর দিকে লাগিয়ে নিন। এক অন্যরকম মাত্রায় নিয়ে যাবে এই রূপটান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.